1. [email protected] : আরএমজি বিডি নিউজ ডেস্ক :
মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৫:৪৮ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব রপ্তানি ট্রফি লাভকারি হামীম গ্রুপের প্রতিষ্ঠান রিফাত গার্মেন্টস কোটাবিরোধী ছাত্র আন্দোলনে থমকে আছে সারাদেশ হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে যেসব মার্কিন প্রেসিডেন্ট ও প্রেসিডেন্ট প্রার্থীরা ভক্তদের কাঁদিয়ে ফুটবল থেকে বিদায় নিচ্ছেন দি মারিয়া কাল প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন হেপাটাইটিসে আক্রান্ত ৭০ হাজারের বেশি মানুষ পুলিশও মামলা করলো কোটা আন্দোলনকারীদের বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের সাথে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের বৈঠক সংসদে আইন পাস না করা পর্যন্ত আন্দোলন চলবে রাষ্ট্রপতির জেলায় এসপি হিসেবে দায়িত্ব পেলেন মো. আ. আহাদ

পালিয়ে আসা মার্কিন সেনাকে নিয়ে যে তথ্য প্রকাশ করল উত্তর কোরিয়া

  • সময় বুধবার, ১৬ আগস্ট, ২০২৩
  • ২২৯ বার দেখা হয়েছে
 মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেনা সদস্য ট্রাভিস কিং। নিয়োজিত ছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ায়। কিন্তু চলতি বছরের গত ১৮ জুলাই সবাইকে চমকে দিয়ে দক্ষিণ কোরিয়া থেকে সীমান্ত পার হয়ে প্রতিবেশী উত্তর কোরিয়ায় ঢুকে পড়েন তিনি। উত্তরে প্রবেশের পরই তাকে নিজেদের জিম্মায় নেয় কিম জং উনের দেশ উত্তর কোরিয়া।
এবার সেই মার্কিন সৈন্যকে নিয়ে প্রথমবারের মতো বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করল উত্তর কোরিয়া। দেশটি দাবি করেছে, মার্কিন সেনা ট্রাভিস কিং তাদের জানিয়েছেন- সেনাবাহিনীতে ‘দুর্ব্যবহার ও বর্ণবৈষম্যের শিকার হওয়ার কারণে’ তিনি উত্তর কোরিয়ায় পালিয়ে এসেছেন। উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছেন, ট্রাভিস কিং তাদের কাছে অথবা তৃতীয় কোনও দেশে রাজনৈতিক আশ্রয় চেয়েছেন।
তবে উত্তর কোরিয়ার এমন দাবির সত্যতা নিশ্চিত করতে পারেনি যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, তাদের মূল উদ্দেশ্য হল ট্রাভিসকে ‘যেকোনও উপায়ে’ দেশে ফিরিয়ে আনা। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র জানিয়েছিল, ট্রাভিস সম্পূর্ণ নিজের ইচ্ছায় উত্তর কোরিয়ায় প্রবেশ করেছেন। এরপর থেকে তার সঙ্গে আর কোনও যোগাযোগ স্থাপন সম্ভব হয়নি। জানা গেছে, ট্রাভিস সেনাবাহিনীতে ২০২১ সাল থেকে আছেন। তিনি সেনাবাহিনীতে মূলত একজন নজরদারি বিশেষজ্ঞ হিসেবে কাজ করতেন।
তবে উত্তর কোরিয়ায় প্রবেশের আগে, হামলার অভিযোগে ট্রাভিস দক্ষিণ কোরিয়ায় দুই মাসের জন্য জেল খাটেন। গত ১০ জুলাই তিনি মুক্তি পান। মুক্তির পরই তার যুক্তরাষ্ট্রে চলে যাওয়ার কথা ছিল। সেখানে তার বিরুদ্ধে সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হতো। সূত্র: সিএনএন, দ্য গার্ডিযান, বিবিসি

শেয়ার করুন

এই শাখার আরো সংবাদ পড়ুন
All rights reserved © RMGBDNEWS24.COM
Translate »